রাজনীতি

ফুলবাড়ীয়ায় সেলিমা বেগম সালমা’র উঠান বৈঠক সম্পর্কে তৃণমূলের ইতিবাচক ধারণা

আজকের ফুলবাড়ীয়া ডেস্ক : দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ময়মনসিংহ ৬ ফুলবাড়ীয়া আসনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী সেলিমা বেগম সালমা উপজেলার বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় ধারাবাহিকভাবে উঠান বৈঠক সহ অন্যান্য কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন।

বর্তমান সরকারের উন্নয়ন প্রচার ও আগামী নির্বাচনে নৌকায় ভোট প্রার্থনা করে অনুষ্ঠিত উঠান বৈঠক গুলোতে প্রান্তিক পর্যায়ের মহিলা ভোটাররা অংশ নিচ্ছেন। গ্রাম গঞ্জের জনগণ যারা উঠান বৈঠকে অংশ নিচ্ছেন তারা এ কার্যক্রমকে স্বাগত জানিয়েছে। তারা বলছেন, আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়নের বর্ণনা অতীতে কোন নেতৃবৃন্দ এভাবে প্রচার করেনি। এতে প্রতিটি নাগরিকদের প্রকৃত অধিকার সম্পর্কে অবগত হচ্ছে এবং সচেতনতা তৈরি হচ্ছে।

উঠান বৈঠক আয়োজনে সম্পৃক্ত আওয়ামী রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত একাধিক নেতা জানান, এ কার্যক্রম করার প্রকৃত উদ্দেশ্য হলো আওয়ামী লীগ সরকারের প্রকৃত সুবিধা গুলো জনসাধারণের মাঝে বর্ণনা করা। এতে করে আগামী সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে মানুষের পাশে সরকার সম্পর্কে ইতিবাচক মনোভাব বৃদ্ধি পাচ্ছে।

শনিবার (১৭ জুন) সকালে উপজেলার ৭নং বাক্তা ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডে ২৩৭তম উঠান বৈঠকে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রলীগ নেত্রী সেলিমা বেগম সালমা। বক্তব্যে তিনি তৎকালীন বিএনপি জামাত জোট সরকারের সময়ে দেশের সার্বিক উন্নয়ন, নাগরিক সুবিধা ও বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন এবং নাগরিক সুবিধার মধ্যে তুলনামূলক পার্থক্য তুলে ধরেন। এছাড়াও আগামী সংসদ নির্বাচনে জনগণ কেন নৌকা মার্কায় ভোট দিবে তার পক্ষে যথেষ্ট যুক্তি উপস্থাপন করেন সেলিমা বেগম সালমা। একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, গত সারে ১৪ বছরে বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন প্রান্তিক ভোটারদের মাঝে প্রচার করা হচ্ছে। যাতে করে আগামী সংসদ নির্বাচনে এই সংসদীয় আসনে আবারো নৌকা প্রতীক বিজয়ী হতে পারে। সেলিমা বেগম আরো বলেন, মূলত নৌকাকে বিজয়ী করার লক্ষ্যেই উঠান বৈঠক সহ অন্যান্য কর্মসূচি নিয়ে মাঠে সক্রিয় রয়েছেন তিনি।

সম্পর্কিত সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button